আনারসের উপকারীতা!

প্রকাশিত হয়েছে
 
 

 প্রাণেরদেশ ডেস্ক : চলছে আনারসের মৌসুম। বাজারে পাওয়া যাচ্ছে সোনালী রঙের মিষ্টি এই ফলটি। আনারসের রসের স্বাদে প্রাণ ভরে না এমন মানুষ খুব কমই আছেন। ফল হিসেবে খান, সালাদে দিন, রান্নায় ব্যবহার করুন, আনারস কখনোই আপনাকে নিরাশ করবে না! সুস্বাদু এই ফলটি আমাদের শরীরের জন্যও বেশ উপকারী। খাওয়ার পাশাপাশি মুখে একটুখানি আনারস মেখে দেখুন, কেমন চমক দেখায়!

আনারসের রস ত্বকে ব্যবহার করলে আপনার বয়স বাড়বে না একদমই! অর্থাৎ বয়স বাড়লেও চেহারায় তার ছাপ পড়বে না। আনারসে পর্যাপ্ত আলফা হাইড্রক্সি অ্যাসিড (এএইচএ) রয়েছে যা কোলাজেন উৎপাদন বাড়িয়ে তুলে ত্বক টানটান মসৃণ রাখতে সাহায্য করে। একটি আনারসের টুকরো পিষে রসটা বের করে নিন। তাতে তুলো ভিজিয়ে রস মুখে মেখে নিন। পাঁচ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন।

প্রাকৃতিক স্ক্রাব হিসেবে কাজ করে আনারস। এর মধ্যে একটা খসখসে ভাব রয়েছে যা ত্বক থেকে মৃত কোষ তুলে দেয়। একটুকরো আনারস গোসলের সময় সারা শরীরে ঘষুন। এরপর গোসল করে নিন। ত্বক পরিষ্কার আর তুলতুলে নরম হয়ে যাবে।

প্রাকৃতিক উপায়ে ব্রণ কমাতে জুড়ি নেই আনারসের। ব্রণর উপর আনারসের রস লাগান, দু’ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলুন। আনারসের এনজাইম ব্রোমেলেন ব্রণ চটপট শুকিয়ে ফেলতে সাহায্য করে।

 

ত্বকের আর্দ্রতা বজায় রাখতেও আনারস এক নম্বরে। তিন টেবিলচামচ আনারসের রস নিয়ে তাতে দুই টেবিল চামচ দুধ আর একটা ডিমের কুসুম ভালো করে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে নিন। দারুণ হাইড্রেটিং মাস্কের কাজ করবে এই প্যাকটি।
আনারসে পর্যাপ্ত ফাইবার রয়েছে যা হজমতন্ত্র পরিষ্কার রাখতে সাহায্য করে। আনারস কিডনির স্বাস্থ্যের পক্ষেও খুব ভালো। ফলে শরীরের টক্সিন বের করে দেয় সহজেই। শরীরে টক্সিন জমতে না পারলে তার প্রথম প্রভাবটা পড়ে আপনার ত্বকের উপর। তাই এই মৌসুমে আনারস খান, ঝলমলে ত্বকের অধিকারী হন।

 

Calendder

October 2020
M T W T F S S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
262728293031  

এখানে বিজ্ঞাপন দিন

এখানে বিজ্ঞাপন দিন

%d bloggers like this: